এসএসসি: পাসের হারে শীর্ষে যশোর বোর্ড

লোকসমাজ ডেস্ক॥ মহামারী ও বন্যার কারণে সাত মাস বিলম্বিত এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় এবার পাসের হারে শীর্ষে রয়েছে যশোর শিক্ষা বোর্ডের শিক্ষার্থীরা।
এ বোর্ডে এবার সবচেয়ে বেশি, ৯৫ দশমিক ১৭ শতাংশ শিক্ষার্থী পাস করেছে। আর সবচেয়ে কম পাস করেছে সিলেট বোর্ডে, ৭৮ দশমিক ৮২ শতাংশ।
এর আগে ২০২১ সালে ময়মনসিংহ বোর্ডে সবচেয়ে বেশি, ৯৭ দশমিক ৫২ শতাংশ শিক্ষার্থী পাস করেছিল। আর সবচেয়ে কম পাশের হার ছিল বরিশাল বোর্ডে, ৯০ দশমিক ১৯ শতাংশ।
আর ২০২০ সাল পর্যন্ত টানা আটবার পাসের হারে শীর্ষ ছিল রাজশাহী শিক্ষা বোর্ড। এবার এ বোর্ডের ৮৫ দশমিক ৮৮ শতাংশ পরীক্ষার্থী পাস করেছে।
প্রতিবারের মত এবারও জিপিএ-৫ এ সবার উপরে রয়েছে ঢাকা বোর্ডের শিক্ষার্থীরা, এ শিক্ষা বোর্ডের ৬৪ হাজার ৯৮৪ জন শিক্ষার্থী পূর্ণ জিপিএ পেয়েছে।
২০০১ সালে এসএসসিতে গ্রেডিং পদ্ধতি চালুর পর থেকেই এই স্থানটি ধরে রেখেছে ঢাকার শিক্ষার্থীরা।
সবচেয়ে কম জিপিএ-৫ পেয়েছে সিলেট বোর্ড। এই বোর্ডের ৭ হাজার ৫৬৫ জন শিক্ষার্থী এবার জিপিএ-৫ পেয়েছে।
শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি সোমবার আন্তর্জাতিক মার্তৃভাষা ইনস্টিটিউটে এ বছরের এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফলাফলের বিস্তারিত তুলে ধরেন।
চলতি বছর এসএসসি পরীক্ষায় পাসের হার ৮৭ দশমিক ৪৪ শতাংশ, জিপিএ-৫ পেয়েছে ২ লাখ ৬৯ হাজার ৬০২ জন।
গত বছর এসএসসি পরীক্ষায় পাসের হার ছিল ৯৩ দশমিক ৫৮ শতাংশ, জিপিএ-৫ পায় ১ লাখ ৮৩ হাজার ৩৪০ জন।
সে হিসেবে এবার পাসের হার কমেছে ৬ দশমিক ১৪ শতাংশ পয়েন্ট ও জিপিএ-৫ বেড়েছে ৮৬ হাজার ২৬২টি।
করোনাভাইরাস মহামারী ও বন্যায় সাত মাস পিছিয়ে গত ১৫ সেপ্টেম্বর মাধ্যমিকের পরীক্ষা শুরু হয়। সব বোর্ড মিলিয়ে এ বছর পরীক্ষার্থী ছিল ১৯ লাখ ৯৪ হাজার ১৩৭ জন।
মহামারীতে প্রস্তুতিতে ঘাটতি থাকায় এ বছরও সংক্ষিপ্ত সিলেবাসে সময় ও নম্বর কমিয়ে পরীক্ষা নেয়া হয়।
ধর্ম ও নৈতিক শিক্ষা, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি, বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় এবং বিজ্ঞান- এসব বিষয়ে পরীক্ষা না নিয়ে সাবজেক্ট ম্যাপিংয়ের মাধ্যমে মূল্যায়ন করা হয়।