যশোরে স্ত্রীর যৌতুক মামলায় কারাদণ্ড স্বামীর

স্টাফ রিপোর্টার ॥ যশোরে স্ত্রীর দায়ের করা যৌতুক মামলায় মহিত মন্ডল নামে এক ব্যক্তিকে কারাদ- প্রদান করেছেন আদালত। বৃহস্পতিবার জুুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক আরমান হোসেন এই রায় প্রদান করেন। সাজাপ্রাপ্ত মহিত মন্ডল সাতক্ষীরার পাটকেলঘাটা উপজেলার কাশিডাঙ্গা গ্রামের মৃত বিমল মন্ডলের ছেলে।
আদালত সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, ২০২০ সালের ২৩ নভেম্বর যশোরের মনিরামপুর উপজেলার হেলাঞ্চী গ্রামের রতন মন্ডলের মেয়ে কামনা রানী মন্ডল তার স্বামী মহিত মন্ডলের বিরুদ্ধে যৌতুক নিরোধ আইনে আদালতে একটি মামলা করেন। মামলায় কামনা রানী মন্ডল উল্লেখ করেন, দুই বছর আগে মহিত মন্ডলের সাথে তার বিয়ে হয়। ঘরসংসারকালে তার স্বামী যৌতুকের দাবিতে তাকে শারীরিক ও মানষিক নির্যাতন করতে থাকেন। এর প্রেক্ষিতে তিনি বাবার বাড়ি থেকে নগদ ১ লাখ টাকা এনে দেন। তারপরও আরও ১ লাখ টাকা যৌতুকের দাবিতে তাকে নির্যাতন করা হতো। এক পর্যায়ে যৌতুকের টাকা না পেয়ে প্রচ- মারধর করে মহিত মন্ডল ১০ মাস আগে তাকে বাবার বাড়িতে পাঠিয়ে দেন। এ ঘটনার পর ২০১৯ সালের ১২ জুলাই মহিত মন্ডল শ্বশুরবাড়িতে যান এবং যৌতুকের ১ লাখ টাকা দাবি করেন। অপরাগতা প্রকাশ করায় স্ত্রী কামনা রানী মন্ডলের সাথে ঘরসংসার করবেন না বলে জানিয়ে দেন মহিত মন্ডল। বাধ্য হয়ে কামনা রানী মন্ডল স্বামীর বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করেন। এই মামলায় আসামি মহিত মন্ডলের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় বিচারক তাকে দেড় বছর সশ্রম কারাদ- ও ১ হাজার টাকা অর্থদ- অনাদায়ে আরও ১ মাসের বিনাশ্রম কারাদ- প্রদান করেন।

 

Lab Scan
ভাগ