খুলনা ডুমুরিয়ার মুন্নি নিখোঁজ: সপ্তাহ পেরিয়ে গেলেও মেলেনি সন্ধান

এম রুহুল আমীন, ডুমুরিয়া (খুলনা)॥ গত ২২ মার্চ খুলনার বি এল বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ থেকে স্নাতক (সম্মান) ২য় বর্ষের পরীক্ষা দিয়ে নিখোঁজ হয়েছে ডুমুরিয়া উপজেলার চুকনগর গ্রামের মতিয়ার রহমান গাজীর মেয়ে বয়রা মহিলা কলেজের ছাত্রী সুমাইয়া ইয়াসমিন মুন্নী। এক সপ্তাহ পেরিয়ে গেলেও সন্ধান না পেয়ে উদ্বেগ উৎকন্ঠার মদ্যে কাটছে তার পিত্রালয় শ্বশুর বাড়ির লোকজন। এঘটনায় নিখোঁজ মুন্নির ভাই রিপন গাজী (১৯) কেএমপি’র দৌলতপুর থানায় একটি সাধারণ ডাইরি করেছেন।
ডাইরি সূত্রে জানা যায়, বৈবাহিক সূত্রে মুন্নী বাগেরহাট জেলার রামপাল উপজেলার কুমড়ো খেজুর মহল গ্রামে বসবাস করত। তার স্বামীর নাম জাহিদ হোসেন, গত ২২ মার্চ সে স্বামীর বাড়ি থেকে দৌলতপুর বিএল কলেজে পরীক্ষা দিতে আসে। কিন্তু পরীক্ষা শেষে মুন্নী স্বামীর বাড়ি বা বাপের বাড়ি কোথাও ফিরে আসেনি, তার ব্যবহৃত মোবাইল ফোনটিও অদ্যাবধি বন্ধ রয়েছে। অনেক খোঁজাখুঁজির পরও তার কোন সন্ধ্যান না পেয়ে গত ২৫ মার্চ দৌলতপুর থানায় তার ভাই রিপন গাজী একটি সাধারণ ডাইরি করেন, যার নাম্বার ১৩১৬। নিখোঁজ হওয়ার সময় মুন্নি কালো রংয়ের বোরকা পরা ছিল। নিখোঁজের ৮দিন পেরিয়ে গেলেও মুন্নির সন্ধান না পেয়ে পিতা ও স্বামীর পরিবারের লোকজন চরম উদ্বেগ আর উৎকন্ঠার মধ্যে দিন কাটাচ্ছে।

Lab Scan
ভাগ