সীমান্ত হত্যা বন্ধে আরও সতর্ক হবে ভারত: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

লোকসমাজ ডেস্ক॥ ভারতের বিদেশ সচিবের সঙ্গে বৈঠকের পর পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আব্দুল মোমেন বলেছেন, সীমান্ত হত্যা বন্ধে ভারত আরও বেশি সতর্ক হবে, এ বিষয়ে তারা একটি ফর্মুলা দিয়েছে। মঙ্গলবার মধ্যাহ্নে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাত করেন ভারতের পররাষ্ট্র সচিব হর্ষবর্ধন শ্রিংলা। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে ওই সাক্ষাৎ-বৈঠক শেষে মন্ত্রী গণমাধ্যমকে ব্রিফ করেন। সেখানে তিনি বলেন, সীমান্ত বিষয়ে সচিব নিজেই বলেছেন- এ বিষয়ে তারা সতর্ক দৃষ্টি রাখবেন। ভারতের তরফে এ নিয়ে একটি ফর্মুলা দেয়া হয়েছে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, যাতে করে ঝামেলা না হয়। দিনের শুরুতে সব বিষয় নিয়ে পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেনের সঙ্গে ভারতের ভারতের পররাষ্ট্র সচিবের সঙ্গে আলোচনা হয়েছে উল্লেখ করে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, দুই দেশের অমীমাংসিত ইস্যুগুলো নিয়ে তারা বিস্তারিত আলোচনা করেছেন। তার সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ হয়েছে জানিয়ে মন্ত্রী মোমেন বলেন, ভারত এমন কোনো পদক্ষেপ নিতে চায় না, যা বাংলাদেশ-ভারতের মধ্যে চলমান দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের চমৎকার ‘সোনালি অধ্যায়’-এ ফাটল ধরাতে পারে। ড. মোমেন বলেন, বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে সীমান্ত হত্যা ও পানি বণ্টনসহ বেশ কয়েকটি অমীমাংসিত বিষয়ে আমাদের সংক্ষেপে আলোচনা হয়েছে। দুই দেশের দ্বিপক্ষীয় অনেক বিষয়ে কথা হয়েছে। ছোটখাট সমস্যা পানিবণ্টন ইত্যাদি আমরা আলোচনার মাধ্যমে সমাধান করবো। বাংলাদেশ-ভারতের সম্পর্ক অত্যন্ত মধুর। এ মধুর সম্পর্ককে এগিয়ে নিয়ে যেতে দু’দেশ একসঙ্গে কাজ করে যাবে আশা করে মন্ত্রী বলেন, বিশ্বের সবচেয়ে বড় গণতন্ত্রের দেশ ভারত সরকার ১৯৭১ সালে স্বীকৃতি দিয়ে বাংলাদেশকে সম্মানিত করেছে। স্বাধীনতার ৫০ বছর পূর্তিতে ভারতের রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী আসার মধ্যে দিয়ে আবারও সম্মানিত করেছে। আগামী বছর প্রধানমন্ত্রীর প্রস্তাবিত দিল্লি সফর বিষয়ে জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, সময় হলে তা জানানো হবে। এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী মোমেন বলেন, দুই দেশের মধ্যে পানিবণ্টন সমস্যা সমাধানে পরবর্তী যৌথ নদী কমিশনের (জেআরসি) বৈঠক আয়োজনের প্রক্রিয়া ত্বরান্বিত করার জন্য বাংলাদেশ ভারতকে আহ্বান জানিয়েছে।

Lab Scan
ভাগ