মণিরামপুরে শিশু ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে অভিযুক্তকে জরিমানা

স্টাফ রিপোর্টার,মণিরামপুর (যশোর) ॥ মণিরামপুরে শিশুকন্যাকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে আব্দুল জলিল নামের এক ব্যক্তিকে সালিশে ১ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। ওই শিশুর অভিযোগ বাড়িতে কেউ না থাকার সুবাদে প্রতিবেশী আব্দুল জলিল তাকে ঘরের মধ্যে নিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা চালান। ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার রাতে উপজেলার ঘিবা গ্রামে। স্থানীয়রা রাতেই সালিশ বৈঠকে আব্দুল জলিলকে ১ লাখ টাকা জরিমানা করেন।
এলাকাবাসী ও ওই নির্যাতিতার পরিবার জানায়, উপজেলার চালুয়াহাটি ইউনিয়নের ঘিবা গ্রামের শিশু শনিবার রাতে প্রতিবেশী আব্দুল জলিলের বাড়ির উঠান দিয়ে এক বান্ধবীর বাড়িতে যাচ্ছিলো। এ সময় আব্দুল জলিল তার ফাঁকা ঘরের মধ্যে নিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা চালান। এ সময় ওই শিশুর চিৎকারে আশপাশের কয়েকজন মহিলা ছুটে আসলে তিনি পালিয়ে যান। বিষয়টি জানাজানি হলে গ্রামের মাতব্বর জমশেদ আলী কয়েকজনকে সাথে নিয়ে অভিযুক্ত আব্দুল জলিলকে ধরে ওই শিশুর বাবার সামনে নিয়ে যান। সেখানে সালিশ বৈঠক বসিয়ে আব্দুল জলিলকে ১ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়। এ ঘটনার পর থেকে ওই রাতেই আব্দুল জলিল এলাকা ছেড়ে পালিয়ে যান। কিন্তু ওই শিশুর অভিভাবক জানান, তারা কোনো টাকা চান না, ঘটনার সুষ্ঠু বিচার দাবি করেন। এ ব্যাপারে ওই সালিশ বৈঠকের মাতব্বর জামশেদ আলী বলেন, কোন জরিমানা আদায় হয়নি। তবে জরিমানার কথা বলা হয়েছিল। মনিরামপুর থানার অফিসার ইনচার্জ রফিকুল ইসলাম জানান, এ ব্যাপারে কেউ অভিযোগ করেননি। লিখিত অভিযোগ করা হলে অবশ্যই আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Lab Scan
ভাগ