ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার ক্রিকেট র‌্যাংক কত?

লোকসমাজ ডেস্ক॥ ব্রাজিল, আর্জেন্টিনা, পর্তুগাল, কিংবা স্পেনের নামগুলো আসলেই সবার আগে চোখের সামনে ভেসে উঠে নেইমার, মেসি, রোনালদো ও রামোসের ছবি। কিন্তু কখনো কি আর্জেন্টিনার হার্নান ফেনেল বা ব্রাজিলের গ্রেগ্রোর ক্যাসলির কথা চিন্তা করেছেন? তাঁরাও তো বড় মঞ্চে দেশকে প্রতিনিধিত্ব করছেন। হ্যাঁ তাঁরা ফুটবল খেলছেন না নিশ্চয়ই। কিন্তু ব্যাট-বল নিয়ে সবুজের গালিচায় চার-ছক্কা আর উইকেটের ফুলঝুরি ছুটিয়ে দেশের পতাকা বহন করছেন। আর্জেন্টিনা ও ব্রাজিল ফুটবলে শেষ কবে খেলেছিল তা মুখস্থ হয়ে আছে ফুটবলপ্রেমিদের। কিন্তু ক্রিকেটপ্রেমিদের মনেও নেই শেষ কবে প্রতিবেশী দুই দেশ খেলেছিল! গত বছরের অক্টোবরে সাউথ আমেরিকান মেন্স চ্যাম্পিয়শিপে দুই দল মাঠে নেমেছিল। আর্জেন্টিনা যে ম্যাচে ২৯ রানে হারিয়েছিল ব্রাজিলকে।

ক্রিকেট এখন আরও মাত্র ১২টি টেস্ট খেলুড়ে দলের খেলা নয়। আইসিসি ক্রিকেটকে ছড়িয়ে দিতে টি-টোয়েন্টিতে ৮০টি দলের র‌্যাংকিং করেছে। গত বছর আইসিসি তার সদস্যদের মধ্যে হওয়া সব টি-টোয়েন্টি ম্যাচকেই আন্তর্জাতিক করেছে। ফলে ব্রাজিল, আর্জেন্টিনা, স্পেন কিংবা পর্তুগাল যে টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলছে সেগুলো সবই আন্তর্জাতিক স্বীকৃত। শুক্রবার (১ মে) আইসিসি র‌্যাংকিংয়ে বার্ষিক হালনাগাদ করেছে। পারফরম্যান্সের ভিত্তিতে ‘ফুটবল চ্যাম্পিয়নদের’ র‌্যাংকিংয়েও এসেছে পরিবর্তন। ম্যারাডোনা ও মেসির দেশ আর্জেন্টিনার বর্তমান টি-টোয়েন্টি র‌্যাংকিং ৪৬। এর আগে সাউথ আমেরিকার দেশটির র‌্যাংকিং ছিল ৫৬। ফুটবলে আর্জেন্টিনার চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ব্রাজিল। ক্রিকেটে এখনও সেই আমেজ তৈরি হয়নি। তবে আর্জেন্টিনার সমর্থকরা শুনলে খুশি হবেন ক্রিকেটের র‌্যাংকিংয়ে ব্রাজিল অনেক পিছিয়ে। ৬৯তম স্থানে তাদের অবস্থান।
ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর দেশ পর্তুগালের ক্রিকেটে র‌্যাংকিং ৬৪তম স্থানে। গত বছর কম সংখ্যক ম্যাচ খেলায় র‌্যাংকিংয়ে আসা হয়নি পর্তুগালের। এবার শুধু পারফর্মই করেনি নিজেদের ইউরোপ জোনে এখন দাপটের সঙ্গে পারফর্ম করছে। এছাড়া স্পেন আছে ৪২তম স্থানে। র‌্যাংকিংয়ে ভালো অবস্থানে আছে জার্মানিও। তিন ধাপ এগিয়ে ৩৩তম স্থানে আছে দলটি। এছাড়া মেক্সিকোর অবস্থান ৬২তম স্থানে। ক্রিকেটে দল আছে ইতালিরও। র‌্যাংকিংয়ে ২৭তম স্থানে আছে চারবার ফুটবল বিশ্বকাপ জেতা দলটি। ১২ মাস আগে আইসিসি ৮০টি দেশ নিয়ে গ্লোবাল টি-টোয়েন্টি র‌্যাংকিং করেছিল। সেই তালিকা এবার হালনাগাদ করা হয়েছে। নতুন করে সাতটি দেশ যুক্ত হয়েছে, বারমুডা, কেম্যান দ্বীপপুঞ্জ, ইতালি, নরওয়ে, পর্তুগাল, রোমানিয়া ‍ও তুর্কি। পর্যাপ্ত ম্যাচ না খেলার কারণে বাদ পড়েছে ফ্রান্স, আইল অফ ম্যান ও ইসরাইল।