২০৬ মামলার আসামি সোহেলের মুক্তি কতদূর?

বিএনপির যুগ্ম-মহাসচিব ও ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সভাপতি হাবীব-উন নবী খান সোহেল কারাগারে বন্দি। গত বছরের ১৮ সেপ্টেম্বর গুলশান-২ নম্বর থেকে তাকে গ্রেফতার করে আইনশৃঙ্খলাবাহিনী। এরপরে থেকেই কারাবন্দি ২০৬ মামলার এই আসামি। বৃহস্পতিবার একটি মামলায় জামিন পেয়েছেন সোহেল। এজন্য তাকে নারায়ণগঞ্জ কারাগার থেকে ঢাকায় আনা হয়।
বিএনপির নেতারা মনে করছেন, শিগগিরই মুক্তি পাবেন সোহেল। কারণ, তার বিরুদ্ধে বেশিরভাগ মামলায় আদালত জামিন দিয়েছেন। এ বিষয়ে বিএনপি চেয়ারপারসনের প্রেস উইংয়ের সদস্য শায়রুল কবির খান জানান, হাবিব-উন নবী খান সোহেলের বিরুদ্ধে বর্তমান সরকার এ যাবৎ ২০৬টি মামলা দিয়েছে। আইনি লড়াইয়ে তিনি অধিকাংশ মামলায় জামিন পেয়েছেন। আশা করছি, তিনি খুব শিগগিরই ছাড়া পাবেন। তিনি আরও জানান, সোহেল বর্তমানে নারায়ণগঞ্জ কারাগারে আছেন এবং সুস্থ আছেন। গতকাল বৃহস্পতিবারও ঢাকা জজ কোর্টে একটি মামলায় হাজিরা দিয়ে জামিন পেয়েছেন।
সোহেল বিএনপির সহযোগী সংগঠন ছাত্রদলের সভাপতি ছিলেন। অঙ্গসংগঠন স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতির দায়িত্বও পালন করেছেন। স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাসের নেতৃত্বে অবিভক্ত ঢাকা মহানগরীর আহ্বায়ক কমিটির সদস্য সচিব ছিলেন সোহেল। পরে তিনি ঢাকা দক্ষিণের সভাপতির দায়িত্ব পান। এ ছাড়া দলের ষষ্ঠ কাউন্সিলে বিএনপির যুগ্ম-মহাসচিব হন সোহেল। এরপর থেকে অনেকটা আত্মগোপনে থেকে দলের কার্যক্রম চালিয়ে আসছিলেন। গত বছরের ৮ ফেব্রুয়ারি জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলার রায় ঘিরে মগবাজারে বিশাল শোডাউন করেন তিনি। ওই মামলার রায়ে সাজা পেয়ে বর্তমানে কারাগারে রয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া।

ভাগ