সকালে উঠেই পানি খেলে কী হয়?

লোকসমাজ ডেস্ক ॥ আমাদের শরীরের তিনভাগের দুই ভাগই পানি দিয়ে তৈরি। কোনো কারণে এই পানির ঘাটতি দেখা দিলে শরীরের অভ্যন্তরীণ কাজ ব্যহত হয়। যার ফলে নানা সমস্যায় ভুগতে হতে পারে। তাই সারাদিনে অন্তত তিন-চার লিটার পানি পান করা উচিত। আমাদের মধ্যে অনেকেই সকালবেলা ঘুম থেকে উঠেই একগ্লাস পানি পান করেন। এটি শরীরের জন্য উপকারী বলেই মনে করা হয়। আসলেই কি তাই? চলুন জেনে নেয়া যাক এসম্পর্কে বিশেষজ্ঞদের মত-
আপনি যদি সকালবেলা ঘুম থেকে ওঠার পরপরই খালি পেটে একগ্লাস পানি খেয়ে নেন তাহলে আপনার পেট কিছুটা হলেও ভরা লাগবে। এতে খাবার খাবার খাওয়ার প্রবণতা কিছুটা কমে। ঘুম থেকে উঠেই পানি খেলে সকালের নাস্তায় অনেকখানি খাবার খেয়ে ফেলার প্রবণতা কমে। শরীরে কম ক্যালরি প্রবেশ করে তাই ওজনও কমে। আমরা যতক্ষণ ঘুমাই ততক্ষণ আমাদের শরীরে পানি প্রবেশ করে না। অন্তত ছয়-সাত ঘণ্টা ঘুমিয়ে থাকার কারণে পানি পানে একটা দীর্ঘ বিরতি পরে। তাই সকালে যখন আমরা ঘুম থেকে উঠি তখন শরীরে পানির পরিমাণ বেশ কম থাকে। তাই শরীরকে আর্দ্র আর সতেজ করে তুলতে ঘুম থেকে উঠেই অন্তত একগ্লাস পানি খাওয়া জরুরি।
আমাদের শরীরের বিষাক্ত টক্সিন বের করে দিতে কাজ করে কিডনি। আর নির্বিঘ্নে কিডনির কাজ নির্বিঘ্নে চালিয়ে যেতে প্রয়োজন যথেষ্ট পানির। তাই কিডনিকে ভালো রাখতে ও শরীরকে সুস্থ রাখতে প্রয়োজন পানি পান করা। সত্যিই সকালে খালি পেটে পানি খাওয়া ঠিক কতটা দরকারি তা এখনও প্রমাণিত নয়। তবে এটি ঠিক যে এতে ক্ষতির কোনো কারণ নেই। তাই সম্ভব হলে সকালে উঠে একগ্লাস পানি খেয়ে নেবেন। আর সারাদিনে অন্তত দুই-তিন লিটার পানি খাবেন। তাতে দিনভর সতেজ থাকতে পারবেন।

ভাগ