কাক্সিক্ষত হুইল চেয়ার পেলেন চৌগাছার সেই খাদিজা

0

মুকুরুল ইসলাম মিন্টু চৌগাছা (যশোর) ॥ যশোরের চৌগাছায় বাড়ির ছাদ থেকে পড়ে মেরুদন্ডের হাড় ভেঙ্গে যাওয়া সেই খাদিজা খাতুন পেল কাংখিত হুইল চেয়ার ও প্রধানমন্ত্রীর উপহার খাদ্য সামগ্রী। বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলা পরিষদে খাদিজার হাতে হুইল চেয়ার ও খাদ্যসামগ্রী তুলে দেন উপজেলা প্রশাসন। দীর্ঘ দিনের স্বপ্ন পুরোন হওয়ায় আবেগ আপ্লুত হয়ে পড়েন পঙ্গু খাদিজা ও তার পরিবার।  উপজেলার পাতিবিলা ইউনিয়নের ভবানীপুর গ্রামের দিনমজুর ইউনুচ আলীর মেয়ে খাদিজা খাতুন (৩০) দুই বছর আগে বাড়ির ছাদ থেকে পড়ে মেরুদন্ডের হাড় ভেঙ্গে যায়। গরীব অসহায় পিতার পক্ষে চিকিৎসা তো দুরের কথা একটি হুইল চেয়ার কেনার মত সামর্থ নেই।

নিদারুন কষ্টে ঘরের বিছানা আর একটি মাত্র প্লাষ্টিকের চেয়ারে বসে দিন যায় রাত আসে এ ভাবেই কেটেছে খাদিজার দু’টি বছর। বুধবার খাদিজার কষ্টের কথা তুলে ধরে যশোর থেকে প্রকাশিত বহুল প্রচলিত দৈনিক লোকসমাজ পত্রিকার ৩য় পৃষ্ঠায় ’’মেরুদন্ডের হাড়ভাঙ্গা মেয়ের হুইল চেয়ার কেনার সামর্থ নেই দিনমজুর বাবার’’ শিরোনামে একটি সংবাদ প্রকাশিত হয়। হৃদয়স্পর্শ এই সংবাদে খাদিজার পাশে দাঁড়ান চৌগাছার আছিয়া বেগম ফাউন্ডেশনের পরিচালক ফারুক আহমেদ। তিনি পত্রিকায় খবর পড়ে তাৎক্ষনিক ভাবে চৌগাছা প্রেস ক্লাব ও রিপোর্টার্স ক্লাবের সাংবাদিকদের সহযোগীতায় খাদিজার একটি হুইল চেয়ার দিতে আগ্রহ প্রকাশ করেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলা পরিষদে পঙ্গু খাদিজার হাতে হুইল চেয়ার ও প্রধানমন্ত্রীর উপহার খাদ্য সামগ্রী তুলে দেয়া হয়। পাশাপাশি নির্বাহী অফিসার ও প্রেসক্লাব, রিপোর্টার্স ক্লাবের নেতৃবৃন্দ কিছু আর্থিক সহযোগীতাও প্রদান করেন।
এ সময় উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ ড.এম মোস্তানিছুর রহমান, নির্বাহী অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) কাফি বিন কবীর, ভাইস চেয়ারম্যান দেবাশিষ মিশ্র জয়, থানার সেকেন্ড অফিসার এস,আই মেহেদী হাসান, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা (পিআইও) ইশতিয়াক আহমেদ, উপজেলা দূর্ণতি প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি এম কামরুজ্জামান, সহ-সভাপতি গোলাম মোস্তফা, সদস্য ও ইউপি মেম্বর সাফিয়া সুলতানা সেঁজুতি, প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক কবি ও সাংবাদিক শাহানুর আলম উজ্জ্বল, রিােপর্টার্স ক্লাবের সভাপতি বাবলুর রহমান সিনিয়র সহ-সভাপতি এম হাসান মাহমুদ, সাধারণ সম্পাদক মুকুরুল ইসলাম মিন্টু, তথ্য সৈনিক আশরাফ হোসেন আশাসহ বিভিন্ন শ্রেনী পেশার মানুষ উপস্থিত ছিলেন। হুইল চেয়ার ও প্রধানমন্ত্রীর খাদ্য সামগ্রী হাতে পেয়ে পঙ্গু খাদিজার মা জাহিদা বেগম আবেগ আপ্লুত হয়ে পড়েন। এ সময় তিনি বলেন, গত দুই বছরে খাদিজার বাবা অনেক কষ্ট করে মেয়েকে চিকিৎসাসেবা দিয়ে সুস্থ্য করে তোলার জন্য প্রাণপণ চেষ্টা করছে। কখনও ওষুধ কেনা হয় কখনও আবার হয়না, এভাবেই পার হয়েছে দু’টি বছর। অভবের সংসার, যেখানে চিকিৎসা হচ্ছে না, সেখানে একটি হুইল চেয়ার কেনা তো স্বপ্ন। অনেক দিনের সেই স্বপ্ন আজ পুরোন হয়েছে। মেয়ের সুচিকিৎসায় তিনি এসময় সরকার ও সমাজের বৃত্তবানদের কাছে আবারও সাহায্যের আকুতি জানান। যোগাযোগ-০১৭৫৯৬০৫৩৯৮।

Lab Scan