যৌন হয়রানির অভিযোগ, উল্টো নাইকিকেই দুষলেন নেইমার

0

লোকসমাজ ডেস্ক॥ ১৫ বছরের সম্পর্ক, এক ঝটকায় শেষ হয়ে গেল কেন? বিশ্বখ্যাত ক্রীড়া সামগ্রী প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান নাইকি গত বছরের আগস্টে নেইমারকে তাদের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর রাখার চুক্তি থেকে সরে আসে। তখন অবশ্য আলাদাভাবে তেমন কোনো কারণ সামনে আনেনি বহুজাতিক প্রতিষ্ঠানটি। নেইমারের এজেন্টও জানিয়েছিলেন, চুক্তি বনিবনা না হওয়ায় আলাদা হওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে দুই পক্ষ। কিন্তু প্রায় ছয় মাস পর বেরিয়ে এলো চাঞ্চল্যকর এক তথ্য। যুক্তরাষ্ট্রের সংবাদমাধ্যম ‘ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল’ জানিয়েছে, চুক্তি নিয়ে বনিবনা না হওয়া মূল কারণ নয়, নেইমারের সঙ্গে নাইকির সম্পর্কচ্ছেদের নেপথ্যে ‘যৌন হয়রানি’। তাদের প্রতিবেদন অনুযায়ী, নেইমারের বিরুদ্ধে তদন্ত করছিল নাইকি। অভিযোগ ছিল, নাইকির এক কর্মীকে যৌন হয়রানি করেছেন পিএসজি তারকা। কিন্তু নেইমার সেই তদন্ত কাজে কোনো ধরনের সহযোগিতা করতে রাজি হননি। যার জেরে তার সঙ্গে চুক্তি বাতিল করে নাইকি। ভয়াবহ অভিযোগ! নেইমার কি বলছেন? তিনি কি আত্মপক্ষ সমর্থন করছেন নাকি মেনে নিয়েছেন নাইকির দাবি? ব্রাজিলিয়ান সুপারস্টার এবার বিশাল এক ইনস্টাগ্রাম পোস্টে রীতিমত ধুয়ে দিয়েছেন বহুজাতিক প্রতিষ্ঠানটিকে। নেইমার পরিষ্কার করে জানিয়ে দিলেন, নিজেদের দাবির স্বপক্ষে কোনও তথ্যপ্রমাণ নেই ওই সংস্থার কাছে। ওই অভিযোগ পুরোপুরিই মিথ্যা, বানোয়াট। নেইমার জানান, যে কর্মীকে যৌন হয়রানির কথা বলা হচ্ছে, তাকে তিনি চেনেনই না। ইনস্টাগ্রামে পিএসজি সুপারস্টার লিখেছেন, ‘শুধুমাত্র তথ্যের ভিত্তিতে কী করে একটা সংস্থা ব্যবসায়িক সম্পর্ক ছিন্ন করতে পারে, এটা আমি বুঝতে পারছি না।’ ব্রাজিলিয়ান ফুটবল তারকা যোগ করেন, ‘১৩ বছর বয়সে প্রথম চুক্তি করার সময় থেকে শুনে এসেছি, চুক্তির ব্যাপারে কাউকে কিছু বলা যাবে না। সেই নিয়ম কোম্পানির পক্ষ থেকেই ভাঙা হয়েছে। আমি তদন্তে সহযোগিতা করিনি, এই তথ্য পুরোপুরি মিথ্যা।’

Lab Scan