যাত্রীরা লাইনে, ইমিগ্রেশনে কেউ নেই

0

লোকসমাজ ডেস্ক॥ উড়োজাহাজ থেকে নেমে শত শত যাত্রী লাইনে দাঁড়িয়ে আছেন ইমিগ্রেশন কাউন্টারের সামনে। তবে কোনও কাউন্টারের সামনেই কাউকে দেখা গেলো না। ইফতারের সময় এমনই দুর্ভোগে পড়ছেন যাত্রীরা। এ সময় কাউন্টার বন্ধ থাকছে আধঘণ্টা থেকে একঘণ্টা পর্যন্ত। শনিবার সন্ধ্যায় সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, দুটি ফ্লাইটের যাত্রীরা লাইন ধরে অপেক্ষা করছেন ইমিগ্রেশন কর্মকর্তার জন্য। বয়স্ক যাত্রীদের কেউ কেউ দাঁড়িয়ে থাকতে না পেরে বসে পড়েন মেঝেতে। আশেপাশে খাবারের ব্যবস্থা না থাকায় আজান হলেও ইফতার করতে পারেননি তাদের কেউ। যাত্রীরা বলছেন, এভাবে সব কাউন্টার বন্ধ রেখে যাত্রীদের দাঁড় করিয়ে ভোগান্তিতে ফেলা হচ্ছে। সীমিত আকারে হলেও কাউন্টার সচল রাখা উচিত। সেটি সম্ভব না হলে যাত্রীদের বসার এবং ইফতারের ব্যবস্থা করতে হবে। ভারত থেকে এসেছিলেন শাহজাহান মিয়া। তিনি বলেন, ‘কোথাও ইমিগ্রেশন এভাবে পুরোপুরি শূন্য দেখিনি। কম কাউন্টার রেখেও সার্ভিস দেওয়া যায়। আমাদের ৩০-৪০ মিনিট একটানা দাঁড়িয়ে থাকতে হয়েছে।’ এ বিষয়ে জানতে শাহজালালের দায়িত্বরত ইমিগ্রেশনের বিশেষ পুলিশ সুপারকে ফোন করলেও সাড়া মেলেনি। বিমানবন্দরে নবনিযুক্ত নির্বাহী পরিচালক গ্রুপ ক্যাপ্টেন মোহাম্মদ কামরুল ইসলাম বলেন, বিষয়টি আমাদের নজরে এসেছে। সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে কথা বলে সমাধান করার চেষ্টা করবো।

Lab Scan