যশোরে ইজিবাইকচালক খুনের ঘটনায় আটক ২ জনের স্বীকারোক্তি

0

স্টাফ রিপোর্টার ॥ যশোরে ইজিবাইকচালক আব্দুল্লাহকে খুনের ঘটনায় আটক দুই ছিনতাইকারী বৃহস্পতিবার আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে। সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মো. মঞ্জুরুল ইসলাম তাদের জবানবন্দি গ্রহণ করেন।
মামলার তদন্ত কর্মকর্তা কোতয়ালি থানা পুলিশের এসআই আনছারুল হক জানান, চালক আব্দুল্লাহকে গলাকেটে হত্যা করে ইজিবাইক ছিনতাইয়ের ঘটনায় নিহতের পিতা মো. মোজাদ্দাদুজ্জামান গত বুধবার রাতে কোতয়ালি থানায় একটি মামলা করেন। মামলায় তিনি অজ্ঞাতনামাদের আসামি করেছেন। তবে পুলিশ হত্যার সাথে জড়িত ৩ জনকে আটক করতে সক্ষম হয়। তারা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে হত্যার সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকারও করে। তাছাড়া তাদের কাছ থেকে ছিনতাই করা ইজিবাইক এবং হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত ১টি চাকু ও ১টি চাপাতি উদ্ধার করা হয়। বৃহস্পতিবার আটক ৩ জনকে আদালতে সোপর্দ করা হলে এর মধ্যে দুজন ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে। এরা হলো তরফ নওয়াপাড়ার আব্দুল গনির ছেলে হাসিব ও পূর্ব বারান্দী নাথপাড়ার ফারুক হোসেনের ছেলে আরিফ। অপর আটক তরফ নওয়পাড়ার সাঈদ আলী মোড়লের ছেলে আব্দুল্লাহকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আদালতে রিমান্ডের আবেদন করা হতে পারে। তিনি আরো জানান, আটক ৩ জনকেই আদালতের বিচারক কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন। উল্লেখ্য, গত মঙ্গলবার রাতে সদর উপজেলার ঘুরুলিয়ার বেলেরমাঠ নামক স্থানে ছিনতাইকারীরা চালক আব্দুল্লাহর গলাকেটে তার ইজিবাইক নিয়ে যায়। নিহত আব্দুল্লাহ সদর উপজেলার সুলতানপুর গ্রামের মো. মোজাদ্দাদুজ্জামানের ছেলে।

Lab Scan