যশোরে আ.লীগের ‘শান্তি মিছিলে’ বাঁশের লাঠি

0

স্টাফ রিপোর্টার ॥ যশোরে আওয়ামী লীগের অবরোধ বিরোধী ‘শান্তি মিছিলে’ বাঁশের লাঠি নিয়ে মহড়া দিয়েছেন জেলা মহিলা লীগের নেতা-কর্মীরা। বিএনপির কথিত অগ্নিসন্ত্রাস, নৈরাজ্য ও অবৈধ অবরোধের বিরুদ্ধে যশোর-৩ (সদর) আসনের সংসদ সদস্য কাজী নাবিল আহমেদের নেতৃত্বে রোববার সকালে শহরে বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়।
জেলা মহিলা লীগের নেত্রী লাইজু জামানের নেতৃত্বে কয়েকশ নেতা-কর্মী বাঁশের লাঠি নিয়ে শহরের গাড়িখানা এলাকায় মহড়া দিতে থাকেন। লাঠিসোটা ও বাঁশের লাঠি নিয়ে মহড়া দেয়ায় শহরে জনসাধারণের মধ্যে ভীতিকর পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়। এ সময় সেখানে বিপুল সংখ্যক পুলিশ ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য উপস্থিত ছিলেন।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বিএনপি ও সমমনা দলের ডাকা দ্বিতীয় দফা ৪৮ ঘণ্টা অবরোধের প্রথম দিনে জেলা আওয়ামী লীগের একাংশের উদ্যোগে অবরোধ বিরোধী ‘শান্তি মিছিলে’র আয়োজন করা হয়। মিছিলের নেতৃত্বে ছিলেন যশোর-৩ (সদর) আসনের সংসদ সদস্য (এমপি) কাজী নাবিল আহমেদ। তবে মিছিলের আগে জেলা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, শ্রমিক লীগ, মহিলা আওয়ামী লীগ, যুব মহিলা লীগ ও ছাত্রলীগের ব্যানারে সেখানে মিছিল আসতে থাকেন। তবে মিছিলকারীদের অধিকাংশের হাতেই লাঠিসোটা ছিলো। বিশেষ করে জেলা মহিলালীগের কয়েকশ নেতাকর্মী বাঁশের লাঠি নিয়ে দড়াটানা ও চিত্রা মোড় এলাকায় মহড়া দিতে থাকে। এ সময় তারা বিএনপি ও জামায়াতে ইসলামীর বিরুদ্ধে নানা আপত্তিকর স্লোগান দিতে থাকেন।
দুপুরের দিকে গাড়িখানার আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে মিছিলটি বের হয়ে চিত্রামোড়, চৌরাস্তা, দড়াটানাসহ বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে। তবে সংসদ সদস্য কাজী নাবিল আহমেদের নেতৃত্বে প্রতিবাদ মিছিলে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম মিলন, সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদার এমপি উপস্থিত ছিলেন না। মিছিলে অংশ নেন জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি মেহেদী হাসান মিন্টু, সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ও যুবলীগ নেতা আনোয়ার হোসেন বিপুল, জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম আফজাল হোসেন, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক ফারুক আহমেদ কচি, শ্রম সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা কাজী আব্দুস সবুর হেলাল, সমাজকল্যাণ সম্পাদক সুখেন মজুমদার প্রমুখ নেতৃবৃন্দ।

Lab Scan