যবিপ্রবির ৩ শিক্ষার্থীকে আটকে রেখে চাঁদাবাজি,আটক যুবকের রিমান্ড মঞ্জুর

0

স্টাফ রিপোর্টার ॥ যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (যবিপ্রবি) তিন শিক্ষার্থীকে আটকে রেখে চাঁদা আদায়ের ঘটনায় আটক মাসুদ রানা নামে এক যুবকের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। বুধবার পুলিশের করা আবেদনের শুনানি শেষে যশোরের সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. মঞ্জুরুল ইসলাম তার একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। মাসুদ রানা সদর উপজেলার চুড়ামনকাটি ইউনিয়নের গোবিলা গ্রামের ইউনুস আলীর ছেলে।
মামলার বিবরণে জানা গেছে, যবিপ্রবির অনার্স ১ বর্ষের ছাত্র জহিরুল ইসলাম এবং তার দুই বান্ধবী একই বর্ষের শিক্ষার্থী মেহেরিন আফরোজ ও মাহমুদা খাতুন ২৬ জুন বিকেলে বিশ্বাবিদ্যালয় থেকে পাশের বেলতলা নামক স্থানে ঘুরতে যান। সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে অজ্ঞাত পরিচয় কয়েকজন যুবক সেখানে তাদের আটকে রাখে এবং হত্যার ভয় দেখিয়ে জহিরুল ইসলামের কাছে ১০ হাজার টাকা এবং দুই বান্ধবীর কাছে আরও ৩০ হাজার টাকা দাবি করে। এ সময় তিন শিক্ষার্থী প্রাণভয়ে তাদের মোবাইল ফোনের বিকাশ অ্যাকাউন্ট থেকে আসামিদের দেয়া বিকাশ অ্যাকাউন্ট নম্বরে মোট ২০ হাজার টাকা চাঁদা হিসেবে দেন। পরে ওই যুবকেরা হুমকি ধামকি দিয়ে সেখান থেকে চলে যায়। এ ঘটনায় পরবর্তীতে জহিরুল ইসলাম কোতয়ালি থানায় মামলা করলে পুলিশ জড়িত সন্দেহে মাসুদ রানাকে আটক করে। পরে ৫ দিনের রিমান্ডের আবেদন জানিয়ে তাকে আদালতে সোপর্দ করা হয়। বুধবার রিমান্ড আবেদনের শুনানি শেষে আদালতের বিচারক তার একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

 

Lab Scan