মনিরামপুরে মরা গরু জবাইয়ের সময় আটক ১

0

স্টাফ রিপোর্টার,মনিরামপুর(যশোর)॥ যশোরের মনিরামপুরে একটি সিন্ডিকেটের বিরুদ্ধে চোরাই ও মরা গরুর মাংসের রমরমা ব্যবসায়ের অভিযোগ উঠেছে। মঙ্গলবার রাতে একটি মরা গরু এনে কসাইখানার পাশে নাম কাওয়াস্তে জবাই দেয়ার সময় জনতা ধাওয়া দিয়ে আব্দুল্লাহ নামে এক ব্যক্তিকে আটক করে। এ সময় সিন্ডিকেট প্রধান আলমগীর কসাই ও তার প্রধান সহযোগী সুমন হোসেনসহ অন্যরা পালিয়ে যান। নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নির্দেশে বুধবার সকালে স্থানীয়রা ওই মরা গরুটি মাটিচাপা দেয়। তবে অভিযোগ রয়েছে জনতার হাতে আটক আব্দুল্লাহকে পুলিশ ছেড়ে দেয়।
মঙ্গলবার রাত ১২ টার দিকে গাংড়া এলাকা থেকে একটি মরা গরু ভ্যানে করে নিয়ে আসা হয় পৌরশহরের জয়নগর এলাকায় কসাইখানার পাশে বাগানের ভেতর।
প্রত্যক্ষদর্শী কামরুজ্জামান ও  গৃহবধূ যমুনা বেগম জানান, গভীররাতে বাগানের সামনে কসাই আলমগীর ও সুমনকে দেখে স্থানীয়দের সন্দেহ হয়। এ সময় তারা বাগানের দিকে এগিয়ে গেলে কসাই আলমগীর হোসেন, সুমন হোসেনসহ অন্যরা পালিয়ে যান। এ সময় সেখান থেকে ভ্যানে আনা একটি মরাগরুসহ আটক করা হয় আব্দুল্লাহ নামে এক যুবককে। পরে খবর পেয়ে থানা থেকে এসআই এমরান আলী গিয়ে জনতার কাছ থেকে আব্দুল্লাহকে উদ্ধার করেন। এসআই এমরান আলী জানান, কসাই আলমগীর ও তার প্রধান সহযোগী সুমনকে আটকের জন্য বিভিন্ন্ এলাকায় অভিযান চালানো হচ্ছে। তবে জনতার হাতে আটক আব্দুল্লাহ তার ভ্যানে করে মরা গরুটি ভাড়ায় বহন করে এনেছিলেন। ফলে তাকে স্থানীয় এক ব্যক্তির জিম্মায় ছেড়ে দেয়া হয়েছে। এসআই এমরান জানান, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সহকারী কমিশনার(ভূমি) আলী হোসেনের নির্দেশে স্থানীয়দের সহযোগিতায় বুধবার দুপুরে ওই মরা গরুটি মাটিচাপা দেয়া হয়েছে।

 

Lab Scan