মনিরামপুরে পানি আনতে গিয়ে এক কিশোরী ধর্ষিত, ধর্ষক আটক

এস.এম.মজনুর রহমান,মনিরামপুর(যশোর)॥ মনিরামপুরের পল্লীতে সন্ধ্যায় বাড়ির পাশে টিউবয়েলে পানি আনতে যাওয়ার সময় এক কিশোরীকে জাহিদ হাসান নামে এক লম্পট যুবক জোরপূর্বক ধরে নিয়ে পার্শ্ববর্তি একটি পরিত্যক্ত বাড়িতে ধর্ষন করে পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় মঙ্গলবার রাতে ওই কিশোরীর মা বাদি হয়ে জাহিদ হাসানের বিরুদ্ধে থানায় মামলা করে। ওই রাতেই পুলিশ জাহিদ হাসানকে আটক করে। জাহিদ হাসান হরিহরনগর ইউনিয়নের দশআনী গ্রামের মুজিবুর রহমানের ছেলে। পুলিশ জাহিদ হাসানকে বুধবার আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরন করে।
মনিরামপুর থানার এসআই আবদুর রহমান জানান, উপজেলার দশআনী গ্রামের এক স্বামী পরিত্যক্তার ১৩ বছর বয়সী মেয়ে গত ৬ মে সন্ধ্যার পর বাড়ির পাশে টিউবয়েলে পানি আনতে যায়। অভিযোগ রয়েছে পথিমধ্যে একই গ্রামের মুজিবুর রহামনের ছেলে রাজমিস্ত্রীর সহকারি লম্পট জাহিদ হাসান ওই কিশোরীকে জোরপূর্বক ধরে নিয়ে গিয়ে পার্শ্ববর্তি নূর মোহাম্মাদের পরিত্যক্ত বাড়িতে ধর্ষন করে পালিয়ে যায়। পরে ওই কিশোরী বাড়িতে গিয়ে তার মায়ের কাছে ঘটনার বিবরন দেয়। কিশোরীর মা জানায়, বিষয়টি জানাজানি হলে ধর্ষক জাহিদ হাসানের পিতা এবং তার চাচা আবুল হোসেন ধর্ষনের ঘটনা ধামাপাচা দিতে মরিয়া হয়ে ওঠে। অভিযোগ রয়েছে মুজিবুর এবং আবুল হোসেন কিশোরীর মাকে আয়ত্ব করতে মোটা অংকের টাকার প্রলোভন দেখায়। কিন্তু তাতে কিশোরী ও তার মা সম্মত না হওয়ায় জাহিদ হাসানের পিতা আবুল হোসেনের সহায়তায় স্থানীয় ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক আতিয়ার রহমান, গোলাম রসুল, একজন ইউপি সদস্যসহ কতিপয় গন্যমান্য ব্যক্তির সরনাপন্ন হয়। এক পর্যায়ে তারা কিশোরী ও তার মাকে আয়ত্ব করতে ব্যর্থ হওয়ায় মিমাংশার উদ্যোগ ভন্ডুল হয়। স্থাণীয় ইউপি সদস্য মুক্তিযোদ্ধা আবদুস সাত্তার জানান, ধর্ষনের বিষয়টি ধামাচাপা দিতে জাহিদ ও তার অভিভাবকরা ব্যর্থ হয়েছে। তবে মিমাংশার উদ্যোগ নেওয়ার অভিযোগ আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক আতিয়ার রহমান অস্বীকার করেন। হরিহরনগর ইউপি চেয়ারম্যান জহুরুল ইসলাম জানান, এ ব্যাপারে তিনি কিছু জানেননা। মনিরামপুর থানার ওসি(তদন্ত) শিকদার মতিয়ার রহমান জানান, ধর্ষনের ঘটনায় মঙ্গলবার রাতে ওই কিশোরীর মা বাদি হয়ে জাহিদ হাসানের বিরুদ্ধে মামলা করেন। ওই রাতেই জাহিদ হাসানকে আটক করা হয়। ইতিমধ্যে অসুস্থ্য ওই কিশোরীকে উদ্ধারের পর যশোর ২৫০ শয্যা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। দু একের মধ্যে তার ডাক্তারী পরীক্ষা সম্পন্ন হবে।

ভাগ