বিনিয়োগকারীদের পছন্দের শীর্ষে ইউনিয়ন ইনস্যুরেন্স

0

লোকসমাজ ডেস্ক॥ গেল সপ্তাহে কিছুটা পতনের মধ্য দিয়ে পার করেছে দেশের শেয়ারবাজার। এই পতনের বাজারে সপ্তাহজুড়ে দাম বাড়ার ক্ষেত্রে দাপট দেখিয়েছে নতুন তালিকাভুক্ত ইউনিয়ন ইনস্যুরেন্স। গত সপ্তাহে বিনিয়োগকারীদের কাছে পছন্দের শীর্ষে ছিল কোম্পানিটির শেয়ার। ফলে প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) দাম বাড়ার শীর্ষ স্থানটি দখল করেছে এই প্রতিষ্ঠানটি।
গেল সপ্তাহে লেনদেন হওয়া পাঁচ কার্যদিবসের প্রতি কার্যদিবসেই ইউনিয়ন ইনস্যুরেন্সের শেয়ার দাম বাড়ার সর্বোচ্চ সীমা স্পর্শ করে। ফলে সপ্তাহজুড়ে কোম্পানিটির শেয়ার দাম বেড়েছে ৫৯ দশমিক ৭৭ শতাংশ। টাকার অঙ্কে ১৫ টাকা ৩০ পয়সা বেড়েছে। সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস শেষে কোম্পানিটির শেয়ারের দাম দাঁড়িয়েছে ৪০ টাকা ৯০ পয়সা, যা আগের সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে ছিল ২৫ টাকা ৬০ পয়সা।
গত ১৬ জানুয়ারি থেকে শেয়ারবাজারে লেনদেন শুরু হয়েছে কোম্পানিটির। লেনদেনের প্রথমদিন থেকে এখনো পর্যন্ত প্রতি কার্যদিবসে প্রতিষ্ঠানটির শেয়ার দাম বাড়ার সর্বোচ্চ সীমা স্পর্শ করেছে। লেনদেন শুরুর আগে কোম্পানিটি ২০২১ সালের প্রথম নয় মাসের আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করে।
ওই আর্থিক প্রতিবেদনের তথ্য অনুযায়ী, ২০২১ সালের প্রথম তিন প্রান্তিকে (২০২১ সালের জানুয়ারি থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত) শেয়ারপ্রতি মুনাফা করেছে ১ টাকা ৪৮ পয়সা। আইপিও পরবর্তী শেয়ার হিসাবে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি মুনাফা হয়েছে ৮৯ পয়সা।
ফিক্সড ডিপোজিট, শেয়ারবাজারে বিনিয়োগ, ফ্লোর ক্রয় এবং আইপিও খরচ খাতের ব্যয়ের জন্য কোম্পানিটিকে শেয়ার ইস্যুর মাধ্যমে পুঁজিবাজার থেকে ১৯ কোটি ৩৬ লাখ ৯ হাজার ৪০ টাকা উত্তোলনের সুযোগ দেয় পুঁজিবাজারের নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)।
নিয়ন্ত্রক সংস্থার অনুমোদন পেয়ে এই বিমা কোম্পানিটি প্রতিটি ১০ টাকা মূল্যে ১ কোটি ৯৩ লাখ ৬০ হাজার ৯০৪টি শেয়ার ইস্যু করে। এরপর প্রাথমিক গণপ্রস্তাব (আইপিও)-এর মাধ্যমে ১৯ কোটি ৩৬ লাখ ৯ হাজার ৪০ টাকা উত্তোলন করে কোম্পানিটি।
এদিকে শেয়ার দাম বাড়ার পরও বিনিয়োগকারীদের বড় অংশ কোম্পানিটির শেয়ার বিক্রি করতে চাননি। ফলে সপ্তাহজুড়ে কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন হয়েছে মাত্র ১৮ লাখ ২৫ হাজার টাকা। আর প্রতি কার্যদিবসে গড়ে লেনদেন হয়েছে ৩ লাখ ৬৫ হাজার টাকা।
অপরদিকে গেল সপ্তাহে দাম বাড়ার শীর্ষ তালিকার দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে বিডি থাই ফুড। এই প্রতিষ্ঠানটির শেয়ার দামও গেল সপ্তাহের প্রতি কার্যদিবসে দাম বাড়ার সর্বোচ্চ সীমা স্পর্শ করেছে। এতে গেল সপ্তাহজুড়ে এই কোম্পানিটির শেয়ারের দাম বেড়েছে ৫৯ দশমিক ৫৯ শতাংশ। এরপরের স্থানটিতে রয়েছে বাংলাদেশ বিল্ডিং সিস্টেম। সপ্তাহজুড়ে এ কোম্পানিটির শেয়ার দাম বেড়েছে ৩৭ দশমিক ২৭ শতাংশ।
এছাড়া দাম বাড়ার শীর্ষ ১০ প্রতিষ্ঠানের তালিকায় থাকা ইয়াকিন পলিমারের ২৩ দশমিক ৭৩ শতাংশ, ন্যাশনাল পলিমারের ২২ দশমিক ৬৫ শতাংশ, অলটেক্স ইন্ডাস্ট্রিজের ১৭ দশমিক ৬৫ শতাংশ, একমি পেস্টিসাইডের ১৭ দশমিক ৫৩ শতাংশ, ইউনিয়ন ব্যাংকের ১৫ দশমিক ৭০ শতাংশ, কাট্টালী টেক্সটাইলের ১২ দশমিক ৯৩ শতাংশ এবং রূপালী লাইফ ইনস্যুরেন্সের ১২ দশমিক ৮৯ শতাংশ দাম বেড়েছে।

Lab Scan