বর্বর শাসনে অসহায় দেশবাসী : রিজভী

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহল কবির রিজভী বলেছেন, ‘জনগণের কাছে জবাবদিহি ও ভোটারবিহীন সরকারের প্রতিনিয়ত নিষ্ঠুর ও অমানবিক আচরণে দেশের মানুষ ভীত-সন্ত্রস্ত। বর্বর শাসনে দেশবাসী আজ অসহায়।‘ তিনি বলেন, ‘আওয়ামী সরকারের মদদপুষ্ট সন্ত্রাসীরা সারাদেশকে মৃত্যুপুরীতে পরিণত করেছে। নিহত ও আহতের পরিবারে যখন চলে শোকের মাতম তখন সন্ত্রাসীরা উল্লাসে ফেটে পড়ে।’
দলটির সহ-দফতর সম্পাদক মুহাম্মদ মুনির হোসেন স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে এসব কথা বলেন তিনি। নাটোর জেলা বিএনপি নেতা শহিদুল ইসলাম বাচ্চুর ওপর হামলার প্রতিবাদে এই বিবৃতি দেয়া হয়। হামলার ঘটনায় আওয়ামী লীগকে দায়ী করে রিজভী বলেন, ‘দেশব্যাপী বিএনপি নেতাকর্মীদের টার্গেট করে তাদের ওপর হামলা চালানো হচ্ছে, আজ নাটোর জেলা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম বাচ্চুর ওপর হামলা তারই নগ্ন ধারাবাহিকতা। ছাত্রলীগ-যুবলীগের বেপরোয়া এবং লাগামহীন পৈশাচিক দানবীয় কর্মকাণ্ডে এখন দেশবাসীর প্রতিটি মূহুর্ত অতিবাহিত হচ্ছে গভীর শঙ্কায়।’ তিনি বলেন, ‘বিনা ভোটের নির্বাচনে নিজেদের বিজয়ী ঘোষণা করে আইন শৃঙ্খলা বাহিনীসহ দলীয় সন্ত্রাসীদের কাজে লাগিয়ে সম্পূর্ণ পেশিশক্তির জোরে দেশ চালাতে গিয়ে বর্তমান শাসকগোষ্ঠী রাষ্ট্রক্ষমতা ধরে রাখতে বর্বর, হিংস্র ও সম্পূর্ণ হিতাহিত জ্ঞানশূন্য হয়ে পড়েছে। তারা নিশ্চিত হয়ে গেছে যে, শাসনক্ষমতা পাকাপোক্ত করতে কিংবা ক্ষমতার সিংহাসনে আরোহণ করতে হলে জনগণের সমর্থন বা ভোটের প্রয়োজন নেই। বরং নিজেদের পছন্দমতো লোক দিয়ে সাজানো জনপ্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে ব্যবহার এবং সন্ত্রাস সৃষ্টির মাধ্যমেই দেশের শাসনক্ষমতা সূদৃঢ় করা সম্ভব। এ কারণেই দেশ পরিচালনায় ভোটারবিহীন সরকারের বিকৃত কঠোরতা এবং ভয়ংকর ও নির্মম আচরণ দেশকে গভীর সংকটে নিপতিত করেছে।’ অবিলম্বে নাটোর জেলা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম বাচ্চুর ওপর হামলাকারীদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জোর দাবি জানান রিজভী। হামলায় গুরুতর আহত শহিদুল ইসলাম বাচ্চুর আশু সুস্থতা কামনা করেন তিনি।

ভাগ