ছকের বাইরে কঙ্কনা

0

লোকসমাজ ডেস্ক॥ চলচ্চিত্র দুনিয়ায় চিরকালই আলাদাভাবে চিহ্নিত হয়েছেন তিনি। অভিনয় দক্ষতাই হোক বা রাজনৈতিক, সামাজিক দৃষ্টিভঙ্গিই হোক। তিনি অপর্ণা সেনের কন্যা কঙ্কনা সেন শর্মা। সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে ছকের বাইরে গিয়ে সমাজের লিঙ্গ সমতার সমস্যা নিয়ে নিজের দৃষ্টিভঙ্গির কথা জানালেন কঙ্কনা। সমাজ যেভাবে লিঙ্গের বিভাজন তৈরি করে রেখেছে, সেই বিভাজনে বিশ্বাস রাখেন না তিনি। মানুষের লিঙ্গ পরিচয় নির্দিষ্ট কোনো ছকে বাঁধা হতে পারে না বলেই মত ‘দ্য রেপিস্ট’-এর নায়িকার। তাই তিনি নিজেকে কেবল একজন ‘নারী’ হিসেবে চিহ্নিত করতে চান না। তিনি এমন একজন মানুষ, যার মধ্যে নারী এবং পুরুষ দুইয়েরই বৈশিষ্ট্য লক্ষ্য করা যাবে।
কঙ্কনার মতে, লিঙ্গ পরিচয় নিয়ে মানুষ যা জানে, তা আসলে সমাজের শিখিয়ে পড়িয়ে দেয়া। নিজেকে সেই বাঁধাধরা ছকে ফেলতে পারেন না তিনি। এমনকি ছবিতে অভিনয় করার ক্ষেত্রেও তাকে যদি তথাকথিত ‘মহিলাসুলভ’ কোনো চরিত্রে অভিনয় করতে বলা হয়, তাকে আলাদা করে সেই বিষয়ে প্রশিক্ষণ নিতে হয়। কঙ্কনা জানালেন, ছোট থেকেই তার মা অপর্ণা সেন এবং বাবা মুকুল শর্মা উদার চিন্তাভাবনায় বড় করে তুলেছেন। তাই সমাজের গতানুগতিকতার সঙ্গে পা মেলাতে না পারার অভ্যাস তৈরি হয়ে গিয়েছে অনেক আগে থেকে। নিয়মের বেড়াজালে দম বন্ধ লাগে কঙ্কনার। তার মা-বাবার মতো নিজের ছেলে হারুনের ক্ষেত্রেও তিনি সেই শিক্ষাকেই মাথায় রাখেন। হারুনের মন, ধ্যান-ধারণা, চিন্তা যেন প্রশস্ত হয়, সেদিকে নজর রণবীর শোরের প্রাক্তন পত্নীর। এদিকে এ অভিনেত্রী এখন কাজ বেশ কম করছেন। এরমধ্যেও ‘স্কলারশিপ’ নামের একটি ছবির কাজ শুরু করেছিলেন। তবে সেটির কাজ এখন বন্ধ রয়েছে। নতুন কাজের প্রতি আগ্রহও যেন কম এ অভিনেত্রীর। তিনি বলেন, নতুন কাজ করতেই হবে এমন করে ভাবি না। কারণ মনের মতো গল্প ও চরিত্রেই আমি শুরু থেকে অভিনয় করে আসছি। সে রকম না পেলে কাজ করবো না। এটাই কিন্তু আমার সিদ্ধান্ত। প্রতিনিয়তই নতুন ছবির প্রস্তাব আসে। যার বেশির ভাগই ফিরিয়ে দিতে হয় আমাকে। খুব পছন্দসই কিছু না হলে পর্দায় শুধু শুধু এসে লাভ কি! তাই অপেক্ষাতেই আছি তেমন কোনো কিছুর। আশা করছি এ বছর আমাকে নতুন ছবিতে পাবেন দর্শক।

Lab Scan