চৌগাছায় মাদ্রাসাশিকের বেত্রাঘাতে শিশু আহত

স্টাফ রিপোর্টার, চৌগাছা (যশোর) ॥ যশোরের চৌগাছায় একটি হাফেজিয়া মাদ্রাসার শিকের বেত্রাঘাতে হাফেজ শিার্থী শিশু জিসান হোসেন (১৪) আহত হয়েছে। স্থানীয়রা আহত ছাত্রকে উদ্ধার করে চৌগাছা হাসপাতালে ভর্তি করেন। বুধবার জোহরের নামাজের পরপরই এই ঘটনাটি ঘটে পৌর এলাকার বেলেমাঠ গ্রামের মসজিদ সংলগ্ন হাফেজিয়া মাদ্রাসায়। স্থানীয়রা হাফেজ হুজুরকে আটক করে উত্তমমধ্যম দিয়েছেন।
এলাকাবাসী জানান, বেলেমাঠ গ্রামের মসজিদ সংলগ্ন একটি হাফেজিয়া মাদ্রাসা আছে। প্রায় ২৫ জন শিশু সেখানে হাফেজ শিক্ষা গ্রহণ করছে। বুধবার জোহরের নামাজের পর ছাত্র জিসান হোসেন রোজা রাখার কারণে কিছুটা অসুস্থ বোধ করায় বিশ্রাম নিচ্ছিল। এটি হুজুর আমিনুর রহমান ভালভাবে নেননি। তিনি জিসানকে কিছু জিজ্ঞাসা না করেই বেত দিয়ে বেধম মারপিট করেন। এতে মারাত্মক আহত হয় শিশু জিসান। স্থানীয়রা খবর পেয়ে হুজুরকে মাদ্রসার মধ্যে আটক করে উত্তমমধ্যম দেন এবং আহত শিশু জিসানকে দ্রুত চৌগাছা হাসপাতালে ভর্তি করেন। হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক সুব্রত কুমার বাগচি বলেন, শিশুটির সমস্ত শরীরে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে তবে ডান হাতের আঘাতটি গুরুতর। এক্স-রে রিপোর্ট না পাওয়া পর্যন্ত হাতটির কি অবস্থা বলা সম্ভব না। মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটির সভাপতি আজগার আলী বলেন, একজন শিক্ষক কখনও তার ছাত্রকে এভাবে মারপিট করতে পারেন না। আমি খবর পাওয়ার সাথে সাথে শিশুটিকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে এসেছি।

ভাগ