চৌগাছায় ঋণের দায় বাড়িওয়ালার ঘাড়ে চাপিয়ে ভাড়াটিয়া চম্পট

0

চৌগাছা (যশোর) সংবাদদাতা ॥ যশোরের চৌগাছায় এনজিও’র ঋণের দায় বাড়ির মালিকের ওপর চাপিয়ে চম্পট দিয়েছেন এক প্রতারক ভাড়াটিয়া। এমন অভিযোগ করেছেন চৌগাছা পৌরশহরের নিরিবিলি ফুড কর্নারের মালিক শাহাজ্জেল হোসেন। তিনি অভিযোগ করেন, তার বাসার ভাড়াটিয়া আসাদ হোসেন ও তার স্ত্রী ৬০ হাজার টাকা এনজিও’র ঋণের দায় তার ঘাড়ে চাপিয়ে পালিয়ে গেছেন। এ ছাড়া তার দোকান থেকে নগদ ৫২ হাজার টাকা ও মালামাল নিয়ে গেছেন তারা। এ ঘটনায় শাহাজ্জেল হোসেন চৌগাছা থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। তিনি পাতিবিলা ইউনিয়নের ভবানীপুর গ্রামের মৃত বদর উদ্দীন বিশ্বাসের ছেলে। শাহাজ্জেল হোসেন জানান, পৌরসভার ৪ নম্বর ওয়ার্ডের উপজেলা পাড়ায় টিনশেডের একটি বাসা ভাড়া নিয়ে স্ত্রী-সন্তানসহ প্রায় ৮ মাস বসবাস করে আসছিলেন আসাদ হোসেন নামের এক কাঁচামাল ব্যবসায়ী। আসাদ হোসেন যশোর সদর উপজেলার বারিনগর ইউনিয়নের ছোট হৈবতপুর গ্রামের আমিন উদ্দীন বিশ্বাসের ছেলে। তিনি গ্রামীণ ব্যাংক ও আরআরএফ চৌগাছা শাখা থেকে ৬০ হাজার টাকা ঋণ নেন। তার গ্রান্টার হন শাহাজ্জেল হোসেন। ফলে আসাদ সপরিবারে পালিয়ে যাওয়ায় তিনি চরম বিপদে পড়েছেন।

Lab Scan