চৌগাছায় ইউপি নির্বাচনে ভোট গননায় অনিয়মের অভিযোগ এক মেম্বরের প্রার্থীর

0

স্টাফ রিপোর্টার চৌগাছা (যশোর)॥ সদ্যসমাপ্ত যশোরের চৌগাছায় ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ভোট গণনায় অনিয়মের অভিযোগ তুলে কেন্দ্রে দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রিজাইডিং অফিসারের বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন করেছেন এক পরাজিত মেম্বর। শনিবার বেলা ১১টায় প্রেসক্লাব চৌগাছায় তিনি সংবাদ সম্মেলন করেন। সংবাদ সম্মেলনে পরাজিত মেম্বর মুতালেব হোসেন লিখিত বক্তব্যে বলেন, ১১ নভেম্বর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চৌগাছা সদর ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডের সাধারণ সদস্য পদে আমি নির্বাচনে অংশ গ্রহণ করি। আমার নির্বাচনী কেন্দ্র চাঁদপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রিজাইডিং অফিসারের দায়িত্ব পালন করেন মোঃ মোজাম্মেল হক।
তিনি বলেন, নির্বাচনী কেন্দ্রে আমার পোলিং এজেন্ট ছিলেন আব্দুর রহিম, পিতা- তাইজুল ইসলাম, শুকুর আলী, পিতা নুরুল ইসলাম। সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। ভোট গ্রহন শেষে বিকাল ৪.২০ মিনিটে ভোট গণনা শুরু করেন সংশ্লিষ্ঠরা। নির্বাচনের আগেই এই ইউনিয়নে চেয়ারম্যান হিসেবে আবুল কাশেম বিনা প্রতিদ্বন্দিতায় নির্বাচিত হন। ফলে শুধুমাত্র সাধারণ সদস্য ও সংরক্ষিত নারী আসনের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। তিনি অভিযোগ করেন, ভোট শেষে সংরক্ষিত আসনের প্রার্থীদের ভোট গণনা করা হলেও সাধারণ সদস্যের কোন ব্যালট গননা করা হয়নি। সাধারণ সদস্যদের ব্যালট ব্যান্ডেল করে নিজের ইচ্ছে মতো ফলাফল ঘোষণা করেন প্রিজাইডিং অফিসার। শুধু তাই না, ভোট গণনার সময় আমার এজেন্ট আব্দুর রহিম (নির্বাচনী পিন নাম্বার ৭৮০০৮৭৬৮৮৫) একাধিকবার প্রিজাইডিং অফিসারের নিকট ভোট গণনার জন্য অনুরোধ করেন। তারপরও তিনি ভোট গণনা না করে পোলিং এজেন্টের সাথে অসৌজন্যমূলক আচারণ করেন। এমনকি তাকে শারীরিকভাবে লাঞ্চিত করার চেষ্টা করেন। এ সময় আমার এজেন্ট নির্বাচনী ফলাফলের শীট চাইলে সেটা তাকে না দিয়ে ছিড়ে টুকরা টুকরা করে ফেলেন। এ ঘটনায় অন্যান্য প্রার্থীর এজেন্টেরা প্রতিবাদ করলে প্রিজাইডিং অফিসার প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী জালাল উদ্দীনের সহযোগিতায় স্থানীয় আঃ সালামের নেতৃত্বে কয়েকজন সন্ত্রাসী ভুক্তভোগী এজেন্টদের উপর চড়াও হয়।
সংবাদ সম্মেলনে এ সময় তিনি পুনরায় ভোট গননার পাশাপাশি সুষ্ঠু ওই নির্বাচনী কার্যক্রম বাঁধাগ্রস্থ করতে যারা সহযোগিতা করেছে তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনে উদ্বর্তন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেন। সংবাদ সম্মেলনে উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্য নির্বাহী সদস্য আওরঙ্গজেব চুন্নু, পোলিং এজেন্ট আব্দুর রহিম, শুকুর আলী, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সদস্য মোহাম্মদ আলী, ভোটার শাহজালাল, শরিফুল ইসলাম, রফিকুল ইসলাম, চান্দু মিয়া, গিয়াস উদ্দীন, লিটন হোসেন প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন। এবিষয়ে ভোট কেন্দ্রে দায়িত্ব পালনকারী প্রিজাইডিং অফিসার মোঃ মোজাম্মেল হকের কাছে জানতে চাইলে তিনি সকল অভিযোগ অস্বিকার করে বলেন, নিয়ম মেনেই ভোট গননা ও ফলাফল প্রকাশ করা হয়েছে।

Lab Scan