খাওয়ার সময় মাংস কম দেয়ায় অভিমানে এক শিশুর আত্মহত্যা

0

 

স্টাফ রিপোর্টার, মনিরামপুর (যশোর) ॥ যশোরের মনিরামপুরে খাওয়ার সময় মাংস কম দেওয়ায় পিতার ওপর অভিমান করে বাপ্পি হোসেন (৭) নামে এক শিশু আত্মহত্যা করে। মঙ্গলবার সকাল সাড়ে নয়টার দিকে এ ঘটনাটি ঘটে উপজেলার হরিহরনগর ইউনিয়নের কায়েমকোলা গ্রামে। নিহত বাপ্পি হোসেন ওই গ্রামের আবদুল মালেকের একমাত্র ছলে। বাপ্পি হোসেন স্থানীয় একটি কওমী মাদ্রাসার ছাত্র ছিলো।
নিহতের মা মঞ্জুয়ারা বেগম জানান, মঙ্গলবার সকাল নয়টার দিকে তার স্বামী ছেলে বাপ্পিকে নিয়ে খেতে বসেন। এ সময় পিতা এক টুকরা মাংস বেশি খাওয়ায় বাপ্পি নাখোশ হয়। এ সময় বাপ্পিকে তার পিতা জানান প্রয়োজনে রাতে আবারও মাংস রান্না করে তাকে দেওয়া হবে। বাপ্পির পিতা জানান, সকালে খাওয়ার পর তিনি টয়লেটে যান। অপরদিকে তার মা রান্নাঘরে ছিলেন। এসময় বাপ্পি অভিমান করে ঘরের মধ্যে গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করে। মনিরামপুর থানা পুলিশের ওসি নূর-ই-আলম সিদ্দিকী জানান, অভিভাবকসহ স্বজনদের অনুরোধে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশনায় ময়নাতদন্ত ছাড়াই শিশুটির মরদেহ দাফনের অনুমতি দেওয়া হয়। এ ব্যাপারে থানায় অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

 

 

Lab Scan