কলারোয়ায় মায়ের বকুনি খেয়ে মেয়ের আত্মহত্যা

0

 

কলারোয়া(সাতক্ষীরা) সংবাদদাতা ॥ কলারোয়ায় সুমাইয়া নামে ৭ বছর বয়সের এক শিশু গলাই ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছে। বুধবার রাতে উপজেলার কেঁড়াগাছি গ্রামের মাঝের পাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। সুমাইয়া ওই গ্রামের মালায়েশিয়া প্রবাসী শিমুল হোসেনের মেয়ে ও কেঁড়াগাছি উত্তর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ২য় শ্রেণির ছাত্রী। স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আবজাল হোসেন হাবিল বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।
সুমাইয়ার দাদা শফিকুল ইসলাম জানান, পড়ালেখা নিয়ে মায়ের বকুনি খেয়ে অভিমান করে ঘরের বারান্দায় গ্রীলে গলাই ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করতে পারে।
স্থানীয়রা জানায়, শিশুটি বুদ্ধিগত ভারসাম্যের ঘাটতি ছিল। খেলার সময় ওড়না গলাই পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করতে পারে। তার মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যায়নি।
কলারোয়া থানার সেকেন্ড অফিসার এস আই নুর ইসলাম জানান, পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। বৃহস্পতিবার ময়না তদন্ত করা হয়েছে। এদিকে এ ব্যাপারে কলারোয়া থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে বলেও তিনি জানান।

 

Lab Scan