করোনা প্রতিরোধে কলকাতা-খুলনা রুটের রেল যাত্রীদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা

স্টাফ রিপোর্টার ॥ করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে বেনাপোল রেলওয়ে ইমিগ্রেশনে ‘বন্ধন এক্সপ্রেস’ ট্রেনে যাতায়াতকারী যাত্রীদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা শুরু হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) সকাল থেকে এই কার্যক্রম শুরু হয়। সপ্তাহের প্রতি বৃহস্পতিবার সকালে এই রেলটি কলকাতা থেকে খুলনার উদ্দেশে ছেড়ে আসে। আবার বিকালে খুলনা থেকে কলকাতার উদ্দেশে যাত্রা করে।
জানা যায়, ১৭ জানুয়ারি চেকপোস্ট ইমিগ্রেশন ও ৫ ফেব্রুয়ারি ভারতীয় ট্রাক চালকদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হয়। এরপর রেলপথে যাতায়াতকারী যাত্রীদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা শুরু করা হচ্ছে। বেনাপোল রেলস্টেশন মাস্টার সাইদুর রহমান বলেন, ‘এখন থেকে করোনা ভাইরাসের শঙ্কা না কাটা পর্যন্ত যাত্রীদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা চলমান থাকবে।’ বেনাপোল ইমিগ্রেশনের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আহসান হাবীব বলেন, ‘বৃহস্পতিবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) সকালে ৪৯ জন পাসপোর্টধারী যাত্রীর স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হয়েছে। এরা সবাই সুস্থ ছিলেন।’ স্বাস্থ্যকেন্দ্রের কমিউনিটি মেডিক্যাল অফিসার আব্দুল মজিদ বলেন, ‘এর আগে শুধু ইমিগ্রেশন যাত্রী ও ভারতীয় ট্রাক চালককে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হচ্ছিলো। এখন কলকাতা-খুলনাগামী বন্ধন এক্সপ্রেস ট্রেনের মাধ্যমে ভারত থেকে আসা যাত্রীদের পরীক্ষার মাধ্যমে বন্দরের যাত্রী প্রবেশের সব চেকপোস্ট স্বাস্থ্য পরীক্ষার আওতায় আনা হলো।’ ভারত থেকে আসা বন্ধন এক্সপ্রেসের কর্মকর্তা প্রশান্ত চক্রবর্তী বলেন, ‘ভারতীয় অংশে অনেক আগে থেকে স্বাস্থ্য পরীক্ষা শুরু হয়েছে। বাংলাদেশে দেরিতে হলেও চিকিৎসা কার্যক্রম চালু করায় সংশ্লিষ্ট সবাইকে ধন্যবাদ।’

ভাগ