আলিবাবা, ফ্রি-ফায়ারসহ ভারতে বন্ধ হচ্ছে আরও ৫৪ চীনা অ্যাপ

0

লোকসমাজ ডেস্ক॥ ভারতে নিষিদ্ধ হতে যাচ্ছে ৫৪টি চীনা অ্যাপ। খুব শিগগির দেশটির সরকারের পক্ষ থেকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে জানা গেছে। ইলেকট্রনিক্স ও তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের নিষিদ্ধ করা অ্যাপগুলোর মধ্যে রয়েছে টেনসেন্ট, আলিবাবা এবং নেটইজের মতো বড় চিনের প্রযুক্তি সংস্থাগুলোর অ্যাপ। রয়েছে সি লিমিটেডের গেম ফ্রি-ফায়ারও।
জানা গেছে, যেকোনো সময় ইলেকট্রনিক্স ও তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রণালয় আনুষ্ঠানিকভাবে ভারতে এই অ্যাপগুলোর ক্রিয়াকলাপ নিষিদ্ধ করে একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করতে পারে।
৫৪টি চীনা অ্যাপের মধ্যে রয়েছে বিউটি ক্যামেরা : সুইট সেলফি এইচডি; বিউটি ক্যামেরা- সেলফি ক্যামেরা; ইকুয়ালাইজার এবং বাস বুস্টার; সেলসফোর্স এন্টের জন্য ক্যামকার্ড; আইসোল্যান্ড ২ : অ্যাশেস অব টাইম লাইট; ভিভা ভিডিও এডিটর; টেনসেন্ট এক্সরিভার; অনমিওজি চেস; অনমিওজি অ্যারেনা; অ্যাপলক; ডুয়াল স্পেস লাইট।
ফ্রি ফায়ার, ব্যাটল রয়্যাল শুটার খেলাগুলোকে প্রায়ই পাবজির সঙ্গে তুলনা করা হয়, গুগল প্লেতে এক বিলিয়নেরও বেশি ডাউনলোডসহ বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় মোবাইল গেমগুলোর মধ্যে একটি। গত বছর, ভারত পাবজি মোবাইল, টিকটক, উইবো, উইচ্যাট, আলিএক্সপ্রেসসহ শত শত চীনা অ্যাপ নিষিদ্ধ করেছিল।
২০২০ সালের নভেম্বরে, আইটি আইনের ৬৯ ধারায় কেন্দ্র ৪৩টি মোবাইল অ্যাপ নিষিদ্ধ করে। কারণ হিসেবে বলা হয়েছে, এগুলো ভারতের সার্বভৌমত্ব এবং অখণ্ডতা, ভারতের প্রতিরক্ষা, রাষ্ট্রের নিরাপত্তা এবং জনশৃঙ্খলার ওপর খারাপ প্রভাব ফেলছে। ক্ষতিকর কার্যকলাপে জড়িত থাকার জন্য এই অ্যাপস সম্পর্কিত ইনপুটের ভিত্তিতে এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছিল।
ভারতে পাবজি ব্যান করার পর অনেকটা হতাশ হয়েছিলেন গেমাররা। এখন আবার ফ্রি-ফায়ার ব্যান হয়ে গেলে তাদের মধ্যে নতুন করে আরেক হতাশা তৈরি হবে বলে মনে করা হচ্ছে।

Lab Scan