অভয়নগরে আইনজীবী মিলন অপহরণের প্রধান পরিকল্পনাকারী রাজ আটক

0

স্টাফ রিপোর্টার ॥ যশোরের অভয়নগরে আইনজীবী আবু হেনা মোস্তফা কামাল মিলন অপহরণ ও মুক্তিপণ দাবির প্রধান পরিকল্পনাকারী হাবিব মিলন ওরফে রাজ (২৪ কে অবশেষে আটক করেছে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)। গত সোমবার রাতে খুলনার দৌলতপুর এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়। এ নিয়ে অপহরণ ও মুক্তিপণ দাবির ঘটনায় ৫ জনকে আটক করা হলো। ২০২১ সালে ফেব্রুয়ারি মাসে ওই আইনজীবীর স্ত্রীর পরামর্শ ও সহযোগিতায় মিলনকে অপহরণ করা হয়েছিল।
মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পিবিআইর এসআই স্নেহাশিস দাশ জানান, আটক রাজ খুলনার দিঘলিয়া উপজেলার দেয়াড়া গ্রামের নজরুল ইসলামের ছেলে। মঙ্গলবার তাকে যশোরের আদালতে সোপর্দ করা হলে তিনি ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট শম্পা বসু তার জবানবন্দি গ্রহণ করেন।
তিনি জানান, আইনজীবী আবু হেনা মোস্তফা কামাল মিলন সাতক্ষীরার তালা উপজেলার বারুইহাটি গ্রামের এম এ হাকিমের ছেলে। আশাশুনি উপজেলার প্রতাবনগর গ্রামের মাদ্রসাশিক্ষক এস এম হারুন অর রশিদের মেয়ে রাবেয়া সুলতানা রিতুর সাথে পারিবারিকভাবে তার বিয়ে ঠিক হয়েছিলো। কিন্তু রিতু উচ্ছৃঙ্খল জীবন যাপন করতেন ও মাদকাসক্ত ছিলেন। বান্ধবী সুরাইয়া ও তার স্বামী রাজের পরিকল্পনা অনুযায়ী গত বছরের ৬ ফেব্রুয়ারি রিতু কৌশলে আইনজীবী মিলনকে ডেকে এনে যশোরের অভয়নগর উপজেলার একতারপুরের একটি বাসায় নিয়ে যান। ওই বাসাতে সুরাইয়া ও রাজ ভাড়া থাকতেন। সেখানে আইনজীবী মিলনকে আটকে রেখে মারধর এবং মুক্তিপণ দাবি করা হয়। এর ৩ তিন পর পরিবারের অভিযোগের প্রেক্ষিতে বিভিন্ন তথ্যের ভিত্তিতে সেখানে অভিযান চালিয়ে তাকে উদ্ধার করেন পিবিআই কর্মকর্তারা। তিনি আরো বলেন, ওই ঘটনায় জড়িত সুরাইয়া ও রিতুসহ ৪ জনকে ইতোপূর্বে আটক করা হয়েছে। সর্বশেষ গত সোমবার প্রধান অভিযুক্ত রাজকে আটক করা হয়।

 

Lab Scan