এক ওভারে ৩৭ রান নিয়ে রেকর্ড গড়লেন ডুমিনি

দক্ষিণ আফ্রিকার ব্যাটসম্যানদের বোধহয় এক ওভারে ৩০ বা তার বেশি রান নেয়ার ব্যাপারে একটা আলাদা আকর্ষণ আছে। গতবছর ডেভিড মিলার এক টি-টুয়েন্টি ম্যাচে বাংলাদেশের সাইফ উদ্দিনের ওভারে ৩১ রান নিয়েছিলেন। আর হার্শেল গিবস তো ওয়ানডে ক্রিকেটে প্রথম এবং এখন পর্যন্ত একমাত্র হিসেবে এক ওভারে ছয় ছক্কা হাকিয়েছিলেন। এবার ছয় ছক্কা না মেরেও আরেক প্রোটিয়া জেপি ডুমিনি বুধবার ঘরোয়া টুর্নামেন্ট ‘মোমেন্টাম ওয়ানডে কাপ’ এ একটি ম্যাচের এক ওভারে ৩৭ রান করেছেন। যা লিস্ট-এ ক্রিকেটে দক্ষিণ আফ্রিকার সর্বোচ্চ।
জাতীয় দলে কিছুটা অনিয়মিত হয়ে পড়েছেন ৩৩ বছর বয়সী ডুমিনি। সর্বশেষ বাংলাদেশের বিপক্ষে দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে ওয়ানডে ও টি-টুয়েন্টি সিরিজে খেলেছিলেন। ভারত দলের চলতি সফরের টেস্ট দলে সুযোগ হয়নি। তাই ঘরোয়া ক্রিকেটেই মন দিয়েছেন এই ক্রিকেটার। আর সেখানেই গড়ে ফেলেছেন রেকর্ড। দক্ষিণ আফ্রিকার ঘরোয়া লিস্ট-এ ম্যাচে ডুমিনির দল কেপ কোবরাস নেমেছিল নাইটসের বিপক্ষে। ৫০ ওভারে ২৪০ রান তাড়া করতে গিয়ে ৩৬ ওভারে ২ উইকেট হারিয়ে ২০৮ রানে পৌঁছে যায় কোবরাস। সেসময় ডুমিনি ৩০ বলে ৩৪ রান নিয়ে ব্যাট করছিলেন। হঠাৎ তার মনে হলো, একটা বোনাস পয়েন্ট পেলে মন্দ কি। সে সময় বল করতে আসেন এডি লেই। এই লেগস্পিনারের উপর চড়াও হন তিনি। লেই এর প্রথম চার বলে চারটি ছক্কা হাকান ডুমিনি। তবে পঞ্চম বলে মাত্র দুই রান আসে। এর পরের ডেলিভারিটি ছিল নো বল। ডুমিনি চার মারেন সেই বলে। এতে প্রথম ৫ বলে আসে ৩১ রান। আর শেষ বলে ছয় মারেন তিনি। শেষপর্যন্ত মোট ৩৭ রান আসে ওভারটি থেকে। যা ৫০ ওভারের ম্যাচে কোন দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যাটসম্যানের ক্ষেত্রে সর্বোচ্চ। এর আগের রেকর্ডটি ছিল হার্শেল গিবসের। তিনি ২০০৭ সালের বিশ্বকাপে নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে এক ওভারে ছয় ছক্কায় ৩৬ রান করেছিলেন।
দক্ষিণ আফ্রিকার সর্বোচ্চ হলেও দুই রানের জন্য বিশ্বরেকর্ড করতে পারেননি ডুমিনি। লিস্ট-এ ম্যাচে এক ওভারে সর্বোচ্চ ৩৯ রান নিয়েছেন এলটন চিগুম্বুরা। আর এখানে জড়িয়ে আছে বাংলাদেশের নাম। ২০১৩ সালে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে তিনি আলাউদ্দিন বাবুর এক ওভারে এই রান সংগ্রহ করেছিলেন। টি-টুয়েন্টি ক্রিকেটে এক ওভারে ৬ ছক্কায় সর্বোচ্চ ৩৬ রান নেয়ার রেকর্ড ভারতের যুবরাজ সিংয়ের। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে ওভারে ছয় ছক্কা হাকিয়ে সর্বোচ্চ ৩৬ রান করার রেকর্ড দুই জনের- ক্যারিবিয় কিংবদন্তি ক্রিকেটার স্যার গ্যারফিল্ড সোবার্সে ও ভারতের রবি শাস্ত্রির। টেস্ট ক্রিকেটে অবশ্য কেউ এখনো ওভারে ছয়টি ছক্কা হাকাতে পারেননি। সর্বোচ্চ ২৮ রান করেছেন আরেক উইন্ডিজ কিংবদন্তি ব্রায়ান লারা।

ভাগ